নোয়াখালীতে জোরপূর্বক ঘরে ঢুকে মাদ্রাসাছাত্রী অপহরণ নোয়াখালীতে জোরপূর্বক ঘরে ঢুকে মাদ্রাসাছাত্রী অপহরণ – CTG Journal

সোমবার, ৩০ নভেম্বর ২০২০, ০৪:২৯ অপরাহ্ন

        English
শিরোনাম :
ভাসানচরে রোহিঙ্গাদের স্থানান্তর শুরু আগামী সপ্তাহে কোভিড-১৯: একদিনে ৩৫ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ২,৫২৫ মানিকছড়িতে স্বাস্থ্যবিধি ও মাস্ক ব্যবহার নিশ্চিত করতে জরিমানা যুগ্ম কমিশনার লুৎফুল কবিরকে বরখাস্তের দাবিতে এনবিআরে বিক্ষোভ সৌদিতে ন্যূনতম মজুরি কাঠামোর সুবিধা পাবেন বেসরকারি খাতের কর্মীরা শতদিনের রেকর্ড ভেঙে নতুন আক্রান্ত ২৯১ করোনার হাত ধরে আসছে অ্যান্টিবায়োটিক-রেজিস্ট্যান্স মহামারি! ফেনীতে বাড়ছে করোনার সংক্রমণ আসছে শৈত্যপ্রবাহ, কমছে তাপমাত্রা নিয়োগবিধি সংশোধন ও বেতন বৈষম্য নিরসনের দাবীতে মানিকছড়িতে স্বাস্থ্য সহকারীদের কর্মবিরতিতে তৃণমূলে সেবা কার্যক্রম ব্যাহত বান্দরবানে বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের মহাপিন্ড দান অনুষ্ঠিত নাইক্ষ্যংছড়িতে খুচরা ইয়াবা ব্যবসায়ী আটক হলেও আসল গডফাদাররা অধরা
নোয়াখালীতে জোরপূর্বক ঘরে ঢুকে মাদ্রাসাছাত্রী অপহরণ

নোয়াখালীতে জোরপূর্বক ঘরে ঢুকে মাদ্রাসাছাত্রী অপহরণ

সিটিজি জার্নাল নিউজঃ ইভটিজিংয়ের ভয়ে দুই বছর আগেই মাদ্রাসায় যাতায়াত বন্ধ করলেও সন্ত্রাসীদের হাত থেকে রেহাই পায়নি নোয়াখালী জেলার চাটখিল উপজেলার খিলপাড়া ইউনিয়নের শীরায় গ্রামের মাদ্রাসাছাত্রী তানিয়া(১৬)। তাকে গতকাল বুধবার রাতে তার বাড়ির নিজ ঘর থেকে অপহরণ করে নিয়ে গেছে একদল অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী।

এ সময় সন্ত্রাসীদের অস্ত্রের আঘাতে একই বাড়ির জেসমিন আক্তার স্বপ্না (২৬), শামসুন্নাহার মুন্নি (২৫) এবং শিশু মারিয়া (১২) আহত হয়েছেন। অপহৃত তানিয়া দত্তেরবাগ গ্রামের প্রবাসী আব্দুল মালেকের মেয়ে। এদিকে এ ঘটনার পর এলাকার লোকজনের মাঝে আতঙ্ক বিরাজ করেছে।

অপহৃতার মা নাসিমা বেগম জানান, তার মেয়ে তানিয়া খিলপাড়া ইউনিয়নের স্থানীয় শ্রীরায় মহিলা মাদ্রাসায় ২০১৬ সালে নবম শ্রেণিতে অধ্যয়নরত অবস্থায় পাশের এলাকার সন্ত্রাসী বাবু ও তার সহযোগিদের হাতে বারবার ইভটিজিংয়ের স্বীকার হয়ে লেখাপড়া বন্ধ করে দেন। এরপর থেকে তানিয়া বাড়িতে থাকেন। বাড়িতে থেকেও তানিয়া সন্ত্রাসীদের হাত থেকে রক্ষা পেল না।

বুধবার সন্ধ্যা রাতে এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী আবুল কালামের ছেলে বাবু (২২), নোয়াখোলা গ্রামের জুগি বাড়ির নুরুল আলমের ছেলে আবু দাউদ (২৫) সহ একদল সশস্ত্র সন্ত্রাসী তার অনুপস্থিতিতে ঘরে জোরপূর্বক ঢুকে তানিয়াকে ঘর থেকে বের করে নিয়ে যায়। এ সময় তাদের বাঁধা দিতে গিয়ে তাদের বাড়ির ১ শিশুসহ ২ নারী আহত হয়। এ সময় সন্ত্রাসীরা তানিয়াকে ধর্ষণ ও গুলি করে হত্যা করার হুমকি দিয়ে যায়। রাতেই ঘটনাটি চাটখিল থানা পুলিশকে জানানো হয় এবং তিনি নিজে লিখিতভাবে থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। পুলিশ রাতেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।

এ ব্যাপারে চাটখিল থানার ওসি জাহিদুল আনোয়ার জানান, এই বিষয়ে থানায় একটি মামলা হয়েছে। থানা পুলিশ তানিয়াকে উদ্ধার ও সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তারে অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, সন্ত্রাসী বাবুর বিরুদ্ধে থানায় ৩টি মামলাসহ অনেক অভিযোগ রয়েছে।

একে/এম

Please Share This Post in Your Social Media

Powered by : Oline IT