পানছড়ির ওমরপুর থেকে ত্রাণের টিন উদ্ধার পানছড়ির ওমরপুর থেকে ত্রাণের টিন উদ্ধার – CTG Journal

রবিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০১৯, ০১:১৪ পূর্বাহ্ন

        English
শিরোনাম :
পানছড়ির ওমরপুর থেকে ত্রাণের টিন উদ্ধার

পানছড়ির ওমরপুর থেকে ত্রাণের টিন উদ্ধার

মোহাম্মদ রাশেদুজ্জামান অলি, পানছড়ি ॥ জেলার পানছড়িতে ত্রাণ মন্ত্রনালয়ের ২০১৭-১৮ অর্থবছরের সাধারণ বরাদ্ধের ২৭ বান্ডিল টিন অবৈধভাবে বাজার জাত করায় অভিযোগের ভিত্তিতে ১২৭ পিছ উদ্ধার করে প্রশাসন।

জানা যায়, পানছড়ি উপজেলায় ২০১৭-১৮ অর্থবছরের ত্রাণ মন্ত্রনালয় হতে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান- দুঃস্থদের মাঝে বিতরণের জন্য সাধারণ বরাদ্ধের ২৭ বান্ডিল ঢেউটিন আসে। প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তার আশেকুর রহমানের তথ্য মতে ( ১) কংচারী পাড়া মায়াবিণী লেক পর্যটন কেন্দ্রে,কংচারী পাড়া -৪ বান্ডিল (২) উপজেলা জামে মসজিদ, পানছড়ি -১ বান্ডিল (৩) ওমরপুর মাদ্রাসা ও হেফজখানা, উল্টাছড়ি-২ বান্ডিল (৪) জিরানী খোলা প্রাথমিক বিদ্যালয়- ৫ বান্ডিল (৫) লোগাং বাজার বিগ্রহ কালী মন্দির, লোগাং বাজার-২ বান্ডিল (৬) যুবনিকা চাকমা, ধুদুকছড়া- ২ বান্ডিল (৭) মনোয়ারা বেগম, ছনটিলা- ১ বান্ডিল (৮) আব্দুল মালেক মালু,দমদম -২ বান্ডিল (৯) রিজার্ভ, উপজেলা পরিষদ-১ বান্ডিল (১০) সুমিতা ত্রিপুরা, নব রঞ্জন কার্বারী পাড়া -১ বান্ডিল (১১) মিন্টু সাওতাল, সাওতাল পাড়া- ১ বান্ডিল (১২) রতœা শীল, সাওতাল পাড়া Ñ১ বান্ডিল (১৩) রেনু দত্ত, সাওতাল পাড়া Ñ১ বান্ডিল (১৪) মানিক সাওতাল, সাওতাল পাড়া -১ বান্ডিল (১৫) সুমি আক্তার, কলোনী পাড়া -১ বান্ডিল (১৬) আমেনা আক্তার, কলোনী পাড়া-১ বান্ডিল সহ মোট ২৭ বান্ডিল (২১৬ পিছ) টিন বিতরণ করা হয়েছে।

১৫ এপ্রিল/২০১৮ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নিকট ওমরপুর গ্রামের বাসিন্দা মোঃ জমসেদ আলী ত্রান মন্ত্রনালয়ের ঢেউটিন অবৈধভাবে আত্মসাতের অভিযোগ করে। ১৬ এপ্রিল /২০১৮ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আবুল হাসেম সরজমিনে তদন্তে প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিসের মাষ্টার রোলের কর্মচারী মোঃ মাসুদ রানা, পিতা-সাদের আলী,ওমরপুর-এর বাড়ী ও বিভিন্ন স্থানে লুকিয়ে রাখা ১২৭ পিছ ঢেউটিন উদ্ধার করে উপজেলা মিলনায়তনে সংরক্ষণ রাখেন। প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা আশেকুর রহমানের নিকট ” ত্রাণ সামগ্রী-বিক্রয় নিষিদ্ধ, সরকারী সম্পদ কিভাবে মাসুদের বাড়ীতে যায় ?” জানতে চাইলে তিনি বলেন,বিষয়টি আমার জানা নাই। মাসুদ অন্যায় করে থাকলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

অপরদিকে অভিযোগকারী জমসেদ আলী বলেন, পিআইও আশেকুর রহমান সম্ভবত এর সাথে জড়িত। নাহলে, ইউএনও সাহেব সরকারী সম্পদ ঢেউটিন জব্দ করার পরও পিআইও-মাসুদকে আইনের কাছে সোর্পদ না করে সাথে নিয়ে কিভাবে ঘুরে বেড়াচ্ছেন?

Please Share This Post in Your Social Media

Powered by : Oline IT