মুক্তিযোদ্ধার মেয়েকে ধর্ষণ, গ্রেফতার ৩ মুক্তিযোদ্ধার মেয়েকে ধর্ষণ, গ্রেফতার ৩ – CTG Journal

সোমবার, ১৯ অক্টোবর ২০২০, ০৯:০৩ অপরাহ্ন

        English
শিরোনাম :
আওয়ামী লীগ কখনও সুষ্ঠু নির্বাচনে বিশ্বাস করে না : ডা. শাহাদাত যমুনায় দ্বিতীয় রেল সেতুর কাজ শুরু নভেম্বরে, ব্যয় বাড়লো দ্বিগুণ মিলগেটে সরবরাহ সংকট, পাইকারীতে রেডি ও ডিও ভোগ্যপণ্যের দামের বড় ফারাক! সংসদীয় গণতন্ত্রের নামে দেশে প্রাতিষ্ঠানিক স্বৈরতন্ত্র প্রতিষ্ঠিত হয়েছে: জিএম কাদের হাটহাজারীতে সরকারি শিশু পরিবারের ২৫’শ বর্গফুট জমি উদ্ধার বেগমগঞ্জের একলাশপুরে বিভিন্ন বাহিনীর ৭ সদস্য আটক বাঁকখালীতে নৌকাডুবি: একজনের লাশ উদ্ধার, এখনও নিখোঁজ ১ পরীক্ষার দাবিতে চবি শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন সুনির্দিষ্ট নীতিমালাসহ ৫ দফা দাবী আদায়ে ফারিয়া’র মানববন্ধন বান্দরবানে তরুণীকে গণধর্ষণের অভিযোগে দুইজন গ্রেফতার তৃতীয় শ্রেণি পাস শ্বশুরের নেতৃত্বে এসএসসি পাস জামাইয়ের ডেন্টাল ক্লিনিক প্রয়োজনে আইন প্রয়োগ করে মাস্কের ব্যবহার নিশ্চিতের নির্দেশ
মুক্তিযোদ্ধার মেয়েকে ধর্ষণ, গ্রেফতার ৩

মুক্তিযোদ্ধার মেয়েকে ধর্ষণ, গ্রেফতার ৩

কুড়িগ্রামে এক মুক্তিযোদ্ধার মেয়েকে দল বেঁধে ধর্ষণ করা হয়েছে। এ ঘটনায় তিন জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এদের মধ্যে হৃদয় হাসান সুমন নামে একজন  বৃহস্পতিবার (১৫ মার্চ) আদালতে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছে। এছাড়া গ্রেফতার মাসুদ ও তারাপদ নামে অপর দুই যুবকের দুই দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

কুড়িগ্রাম সদর থানার ওসি (ভারপ্রাপ্ত) মো. রওশন কবীর এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

জানা গেছে, মুক্তিযোদ্ধার মেয়ে কুড়িগ্রাম কালেক্টরেট স্কুল অ্যান্ড কলেজের একাদশ শ্রেণির এক ছাত্রীর সঙ্গে সদর উপজেলার মোঘলবাসা ইউনিয়নের বানছারাম গ্রামের কামরুল নামের এক ছেলের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। কামরুল ঢাকায় রাজমিস্ত্রীর কাজ করতো। প্রেমের সূত্র ধরে তারা ঢাকায় যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়। বুধবার (১৫ মার্চ) রাত ৮টার দিকে শ্যামলী পরিবহনের একটি গাড়িতে তাদের ঢাকা যাওয়ার কথা ছিল। সে অনুযায়ী সন্ধ্যায় মেয়েটি বাড়ি থেকে বের হয়ে সদর উপজেলার কাঁঠালবাড়ী ইউনিয়নের আরডিআরএস বাজার সংলগ্ন একটি পেট্রোল পাম্পের সামনে অপেক্ষা করতে থাকে। এ সময় কিছু বখাটে তিনটি মোটরসাইকেলে এসে মেয়েটিকে জোর করে পার্শ্ববর্তী কাঁঠালবাড়ী ইউনিয়নের উৎসাহীপুর গ্রামের একটি নির্জন এলাকায় নিয়ে যায়। সেখানে আট থেকে ১০ জন যুবক তাকে ধর্ষণ করে রাস্তার পাশে ফেলে পালিয়ে যায়। পরে এলাকাবাসীর সহায়তায় বৃহস্পতিবার সকালে পুলিশ তাকে হাসপাতালে ভর্তি করে।

কুড়িগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ওই ছাত্রী বলেন, ‘আমি ধর্ষণকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই।’

ওই ছাত্রীকে পুলিশি পাহাড়ায় কুড়িগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হলেও মেয়েটি ও তার পরিবার নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে বলে জানিয়েছেন ওই ছাত্রীর মা ও স্বজনরা।

এ ব্যাপারে কুড়িগ্রাম সদর থানার ওসি মো. রওশন কবীর (ভারপ্রাপ্ত) জানান, এ ঘটনায় নির্যাতনের শিকার মেয়েটি বাদী হয়ে তিন জনের নামসহ অজ্ঞাত আরও ৪/ ৫ জনের কথা উল্লেখ করে সদর থানায় মামলা করেছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত তিন জনকে বৃহস্পতিবারই গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। অন্য আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

ওসি আরও জানান, মেয়েটির প্রেমিক কামরুলের মোবাইল বন্ধ পাওয়া যাচ্ছে। এ ঘটনায় তার সম্পৃক্ততা আছে কিনা তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

Please Share This Post in Your Social Media

Powered by : Oline IT