শীতলক্ষ্যায় লঞ্চডুবি, আরও ৬ লাশ উদ্ধার - CTG Journal শীতলক্ষ্যায় লঞ্চডুবি, আরও ৬ লাশ উদ্ধার - CTG Journal

সোমবার, ১৯ এপ্রিল ২০২১, ০৫:৩৬ পূর্বাহ্ন

        English
শিরোনাম :
আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর টার্গেটে আরও দুই ডজন হেফাজত নেতা আবারও চিকিৎসক দম্পতিকে জরিমানা ভার্চুয়াল কোর্টে জামিন পেয়ে কারামুক্ত ৯ হাজার আসামি লকডাউনের পঞ্চম দিনে ১০ ম্যাজিস্ট্রেটের ২৪ মামলা ওমানের সড়কে প্রাণ গেলো তিন প্রবাসীর, তারা রাঙ্গুনিয়ার বাসিন্দা একই কেন্দ্রে টিকা না নিলে সার্টিফিকেট মিলবে না মামুনুলের বিরুদ্ধে অর্ধশত মামলা, সহসাই মিলছে না মুক্তি ফিরতি ফ্লাইটের টিকিট পেতে সৌদি প্রবাসীদের বিশৃঙ্খলা সেরে ওঠা কোভিড রোগীদের জন্য কি ভ্যাকসিনের এক ডোজই যথেষ্ট? মানিকছড়িতে ভিজিডি’র চাল বিতরণ কার্যক্রম স্থগিত রাখার নির্দেশ নিরাপদ কৌশল লকডাউন: স্বাস্থ্য অধিদফতর ৩৬ লাখ পরিবারকে আর্থিক সহায়তা দেবেন প্রধানমন্ত্রী
শীতলক্ষ্যায় লঞ্চডুবি, আরও ৬ লাশ উদ্ধার

শীতলক্ষ্যায় লঞ্চডুবি, আরও ৬ লাশ উদ্ধার

নারায়ণগঞ্জের শীতলক্ষ্যা নদীতে লাইটার জাহাজের ধাক্কায় যাত্রীবাহী লঞ্চ ডুবির ঘটনায় মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) ভোর থেকে এখন পর্যন্ত আরও ছয় জনের মৃতদেহ উদ্ধার করেছে নৌ পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা। রবিবার সন্ধ্যায় নারায়ণগঞ্জ লঞ্চ টার্মিনাল থেকে যাত্রী নিয়ে ছেড়ে যাওয়া এমভি সাবিত আল হাসান লঞ্চকে এসটি-৩  নামের একটি লাইটার জাহাজ ধাক্কা দিলে যাত্রীবাহী লঞ্চটি উল্টে ডুবে যায়। লঞ্চটিতে প্রায় অর্ধশত যাত্রী ছিল।

সোমবার (৫ এপ্রিল) দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে আইডব্লিউটি এর উদ্ধারকারী জাহাজ প্রত্যয় ৩৫ ফুট গভীর পানির নিচ থেকে ডুবে যাওয়া লঞ্চটির ক্রেনের মাধ্যমে টেনে তীরে তুলে আনে। রবিবার রাত থেকে সোমবার বিকাল পর্যন্ত মোট ৩০ জনের মরদেহ উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিস নৌবাহিনী ও গার্ডের ডুবুরিরা পরে উদ্ধার অভিযান সমাপ্ত ঘোষণা করা হয়।

মঙ্গলবার ভোর থেকে নদীর ভিন্ন স্থানের দুর্ঘটনাকবলিত লঞ্চ থেকে নিখোঁজ হয়ে যাওয়া মরদেহ ভেসে উঠলে লোকজন পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেয়। পরে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে এ ৬ জনের মরদেহ উদ্ধার করে। লঞ্চ দুর্ঘটনায় মোট ৩৫ জনের মরদেহ উদ্ধার হয়েছে।

সার্ভিসের উপসহকারী পরিচালক আরেফিন জানান, ভোর সকাল থেকে লাশ ভেসে উঠলে স্থানীয় লোকজন ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেয় পরে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা নদীর বিভিন্ন জায়গায় ভেসে ওঠা লাশগুলো উদ্বার করে নদীর পশ্চিম তীরে এনে রাখে। যাতে নিহতদের স্বজনরা লাশগুলো শনাক্ত করতে পারে। 

Please Share This Post in Your Social Media

Powered by : Oline IT