খালেদা জিয়ার ব্যক্তিগত চিকিৎসকদের বাধা দেওয়া হচ্ছে: রিজভী - CTG Journal খালেদা জিয়ার ব্যক্তিগত চিকিৎসকদের বাধা দেওয়া হচ্ছে: রিজভী - CTG Journal

বুধবার, ২১ এপ্রিল ২০২১, ০৮:০৫ পূর্বাহ্ন

        English
শিরোনাম :
কাদের মির্জার ভাই ও ছেলেসহ ৩৫ জনের বিরুদ্ধে মামলা ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় হেফাজতের তাণ্ডব: আরও ৭ গ্রেফতার সমঝোতা নয় হেফাজতকে শক্তভাবে দমনের দাবি লকডাউনে ‘বিশেষ বিবেচনায়’ চলবে অভ্যন্তরীণ ফ্লাইট লোহাগাড়ায় একদিনেই ৩৩ জনকে জরিমানা তথ্যপ্রযুক্তি আইনে নুরের বিরুদ্ধে মামলার প্রতিবেদন ৬ জুন সালথা তাণ্ডব: সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান গ্রেফতার বাঁশখালীতে ‘শ্রমিকরাই শ্রমিকদের গুলি করে হত্যা করেছে’! প্রাথমিক শিক্ষকদের আইডি কার্ড দেওয়ার আশ্বাস ‘নারী চিকিৎসকের প্রতি পুলিশ-ম্যাজিস্ট্রেটের অসৌজন্যমূলক আচরণ দেখা যায়নি’ চুয়েটে ভর্তি পরীক্ষার আবেদন ২৪ এপ্রিল মিকনকে ক্রসফায়ারে দেওয়া হবে: কাদের মির্জা
খালেদা জিয়ার ব্যক্তিগত চিকিৎসকদের বাধা দেওয়া হচ্ছে: রিজভী

খালেদা জিয়ার ব্যক্তিগত চিকিৎসকদের বাধা দেওয়া হচ্ছে: রিজভী

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীর অভিযোগ, খালেদা জিয়ার ব্যক্তিগত চিকিৎসকদেরকে সেবা প্রদানের ক্ষেত্রে বাধা দেওয়া হচ্ছে। তিনি বলেছেন, ‘কারাগারে বিএনপি চেয়ারপারসনকে তার প্রাপ্য অধিকার থেকে বঞ্চিত করা হচ্ছে। তার প্রকৃত শারীরিক অবস্থা এখন কেমন, তা জানতে পারছি না আমরা। তাকে হাইকোর্ট জামিন দিয়েছেন, কিন্তু সরকারপ্রধানের নির্দেশে তা স্থগিত করা মানবধিকারের চরম লঙ্ঘন। অবিলম্বে আমরা তার মুক্তি চাই।’ বুধবার (৪ এপ্রিল) সকালে রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন তিনি।

খালেদা জিয়ার বয়স এখন ৭৩ বছর– এ তথ্য জানিয়ে রিজভী বলেন, ‘চুরিবিদ্যাই আওয়ামী লীগের একমাত্র অর্জন। এসবের বিরুদ্ধে প্রতিবাদী হওয়ায় খালেদা জিয়াকে মিথ্যা, জালিয়াতি ও জাল নথির মাধ্যমে বানোয়াট মামলায় সাজা দিয়ে কারাবন্দি করে রাখা হয়েছে।’

সরকারের উদ্দেশে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিবের বক্তব্য– ‘অবিলম্বে দেশনেত্রীর কারামুক্তি নিয়ে নিষ্ঠুর ষড়যন্ত্র বন্ধ করুন। আর যদি না করেন তাহলে কেউ হাত গুটিয়ে বসে থাকবে না।’

জিডিপি প্রবৃদ্ধির সরকারি ঘোষণাকে চাপাবাজি বলে মনে করেন রিজভী। তার ভাষ্য, ‘বর্তমান সরকারের সীমাহীন লুটপাটের কারণে আর্থিক খাত ধ্বংস হয়ে গেছে। ব্যাংকে স্বাভাবিক লেনদেনে নেতিবাচক প্রভাব পড়ছে। বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ কমতে কমতে এখন সর্বনিম্ন পর্যায়ে। বিদেশি রেমিটেন্সে ধস নেমেছে। দুঃশাসনের কবলে পড়ে দেশি-বিদেশি বিনিয়োগে স্থবিরতা বিরাজ করছে। উন্নয়নের নামে দেশজুড়ে হরিলুট চলছে।’

এই রাজনীতিবিদ উল্লেখ করেছেন– সারাদেশের সড়ক-মহাসড়ক, ব্রিজ-কালভার্টের বেহাল দশা ও খুলনা-যশোর মহাসড়কের খানাখন্দ বেহাল দশায় সংস্কারের দাবিতে আজও ১৫ জেলায় পরিবহন ধর্মঘট চলছে। তার কথায়, ‘ঢাকা-চট্রগ্রাম, ঢাকা-উত্তরাঞ্চল সড়কে যানজটে পড়ে মানুষের দুর্ভোগের সীমা নেই। গ্লোবাল কম্পিটিটিভ ইনডেক্স বলছে, এশিয়ার মধ্যে নেপালের পরেই সবচেয়ে খারাপ রাস্তা বাংলাদেশে। অন্যান্য দেশের তুলনায় দ্বিগুণ-তিন গুণ অর্থ ব্যয়ে রাস্তা নির্মাণ করা হলেও কয়েক বছরের মাথায় ভয়াবহ দুর্গতি হচ্ছে রাস্তাগুলোর। দ্রুত পুনর্নির্মাণের প্রয়োজন পড়ছে। অর্থাৎ আবারও নতুন বাজেট, নতুন ভাগ-বাটোয়ারা ও নতুন চুরির সুযোগ সৃষ্টি করা হচ্ছে।’

Please Share This Post in Your Social Media

Powered by : Oline IT