ওইদিন আর দূরে নয় সেরা পাঁচে বাংলাদেশ: বিসিবি প্রধান - CTG Journal ওইদিন আর দূরে নয় সেরা পাঁচে বাংলাদেশ: বিসিবি প্রধান - CTG Journal

বৃহস্পতিবার, ১৩ মে ২০২১, ১২:১৯ পূর্বাহ্ন

        English
ওইদিন আর দূরে নয় সেরা পাঁচে বাংলাদেশ: বিসিবি প্রধান

ওইদিন আর দূরে নয় সেরা পাঁচে বাংলাদেশ: বিসিবি প্রধান

টেস্ট ক্রিকেটে বাংলাদেশের যাত্রা ২০০০ সালে। হাঁটি হাঁটি করে দুই দশকে খেলে ফেলেছে ১২১ টেস্ট। যেখানে ১৪ জয়, ১৬ ড্রয়ের বিপরীতে ৯১ ম্যাচে হার। সাফল্যের বিচারে খুব বেশি প্রাপ্তি নেই। বিশেষ করে, দেশের বাইরে ব্যর্থতা কাটিয়ে উঠতে পারেনি। সীমিত ওভারের ক্রিকেটে সাফল্য আছে, তবে সেটা দেশে। সর্বশেষ নিউজিল্যান্ড সফরেই যেমন সব ম্যাচ হেরেছে। তবে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসানের আশা, শিগগিরই শীর্ষ ৫ দলের একটি হয়ে উঠবে বাংলাদেশ।

আজ (শনিবার) রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে সস্ত্রীক করোনাভাইরাস টিকার দ্বিতীয় ডোজ নেন নাজমুল। ওই সময় তিনি দলের বর্তমান পারফরম্যান্স ও দল নিয়ে নিজের পরিকল্পনার কথা জানান। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেছেন, ‘জিতে গেলে এত খুশি হওয়ার কিছু নেই। হেরে গেলে বেশি কষ্ট পাওয়ারও কিছু নেই। হেরে যাওয়ার পর মাঝে মাঝে আমরা এত বেশি বলে ফেলি, যা দলের ওপর প্রভাব পড়ে। আমাদের সাহস দিতে হবে।’

বর্তমান দলের ওপর তার অগাধ বিশ্বাস, ‘আমি মনেপ্রাণে বিশ্বাস করি, আমরা এমন একটি দল, যে কাউকেই হারাতে পারি। তাই বলে আমরা কিন্তু সেরা দল না। তবে আমাদের সম্ভাবনা আছে, এটকে ধারাবাহিক করাটাই বড় চ্যালেঞ্জ। আমাদের পাইপলাইনের খেলোয়াড়দের নিয়ে আমরা আশাবাদী। আর ওইদিন বেশি দূরে নেই, আমাদের যে টার্গেট, আমরা প্রথম ৫টা দলের মধ্যে থাকবো ইনশাআল্লাহ।’

২০২০ সালে টেস্ট ক্রিকেটের প্রতি মনোযোগ দিতে চেয়েছিল বাংলাদেশ ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা। কিন্তু করোনার কারণে সেটি আর হয়নি। আক্ষেপ ভরা কণ্ঠে বোর্ড সভাপতি বললেন, ‘টেস্টে নিঃসন্দেহে বাংলাদেশ দুর্বল। আপনাদের বলেছিলাম ২০১৯ সালে আমরা টেস্টের ওপরে মনোযোগ দেবো। দ্বিতীয়বার নির্বাচিত হওয়ার পরে বলেছিলাম পাইপলাইন ঠিক করবো। অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ দেখেছেন এবং বয়সভিত্তিক খেলাগুলো হচ্ছে। অবশ্যই আমাদের পাইপলাইন ভালো।’

সঙ্গে যোগ করলেন, ‘পরবর্তী লক্ষ্য হলো কীভাবে টেস্টে ভালো করা যায়। গত প্রায় দেড়টা বছর কোভিডের কারণে সবকিছু এলোমেলো হয়ে গেল। যে প্রোগ্রাম করেছিলাম কিছুই করতে পারিনি। কিন্তু আমি হতাশ নই। আমাদের যে প্রতিভাধর ক্রিকেটার আছে, টেস্টে ভালো না হওয়ার কারণ নেই। কোভিড বিদায় নিলে আমরা আমাদের পদক্ষেপগুলো শুরু করবো।’

নিউজিল্যান্ড সফরে টিম লিডার হয়ে দলের সঙ্গে গিয়েছিলেন জালাল ইউনুস। চলমান শ্রীলঙ্কা সফরে দলের সঙ্গী খালেদ মাহমুদ সুজন। মুমিনুলদের সঙ্গে সুজন থাকায় দলের সব তথ্যই নাকি পাচ্ছেন বিসিবি সভাপতি, ‘এখন অন্তত জানতে পারছি একাদশ কী হচ্ছে, যদি টসে জিতি আগে ব্যাটিং নেবো নাকি ফিল্ডিং নেবো। আগে যেটা ছিল জানতামই না। খালেদ মাহমুদ ওখানে থাকাতে দল আরও স্পিরিটেড হয়ে যাওয়া উচিত। ও সবসময় দলকে উজ্জীবিত করার চেষ্টা করে।’

Please Share This Post in Your Social Media

Powered by : Oline IT